টেলিমাকাস এবং কলোসিয়াম | Telemachus and the Colosseum

 

টেলিমাকাস এবং কলোসিয়াম | Telemachus and the Colosseum

টেলিমাকাস এবং কলোসিয়াম

মন্দের মুখোমুখি হওয়ার ক্ষেত্রে টেলিমাকাসের গল্পটি একটি চরম সাহসের গল্প। টেলিমাকাস ছিলেন একজন খ্রিষ্টান যাজক, যিনি ৩৯১ খ্রিস্টাব্দে রোমে তীর্থ করতে গিয়েছিলেন। সেখানে থাকাকালীন তিনি লক্ষ্য করেছিলেন যে গ্ল্যাডিয়েটরদের যুদ্ধ করা দেখার জন্য কলোসিয়ামে মানুষ ভিড় জমাচ্ছে। তিনি তাদের অনুসরণ করতে গিয়ে এমন এক দৃশ্য দেখলেন যা তাকে নিরুৎসাহিত করেছিল।

রোমীয় সম্রাট হোনোরিয়াস গোথদের উপর তার বিজয় উদ্‌যাপন করছিলেন সে সময়। বর্শা এবং তলোয়ার নিয়ে সজ্জিত গ্ল্যাডিয়েটররা রোমের সাথে গোথদের ঘটে যাওয়া যুদ্ধটি পুনঃনির্মাণ করছিলেন। তাদের পুনর্নির্মাণের পরে  মৃত দেহগুলি আখড়া থেকে টেনে আনা হলো আর আখড়ার রক্তাক্ত পৃষ্ঠটি বালির তাজা স্তর দিয়ে ঢেকে দেওয়া হলো।

তারপর ভেতরে ঢুকলো আর একদল নতুন গ্ল্যাডিয়েটর। তাদের কেউ কেউ তলোয়ার ও বর্শায় সজ্জিত ছিল, আবার কারো হাতে ছিল জাল। যখন তারা একে অপরকে প্রতিহত করার চেষ্টা করতো তখন জনতা জনতা উত্তেজনার সাথে তা উপভোগ করতো। যখন কোনো গ্লাডিয়েটর আঘাত প্রাপ্ত হয়ে মাটিতে পড়ে যেত তখন তার প্রতিপক্ষ তখন প্রতিপক্ষ তাকে মেরে ফেলবে, না বাঁচিয়ে রাখবে জনতার কাছে তার রায়ের জন্য অপেক্ষা করছিল। রক্তপাত এতটাই ভয়াবহ ছিল যে মাঝে মাঝে ধনী দর্শকরা মৃত্যুদণ্ডের এই দৃশ্য আরও ভাল করে দেখার জন্য নিচে নেমে পড়তো।

মানুষকে হত্যা করা, যুদ্ধ আর জনতার উল্লাস টেলিমাকাস আতঙ্কের সাথে দেখছিলেন কলোসিয়ামে বসে বসে। পদক্ষেপে উদ্বুদ্ধ হয়ে হঠাৎ এই টাক মাথার, ঢিলেঢালা গাউন পড়া মানুষটি আখড়া বা এরেনার মেঝেতে ছুটে চললেন। যুদ্ধে আটকে থাকা দু'জন গ্ল্যাডিয়েটরের দিকে তিনি ছুটে গিয়ে তাদের মধ্যে একজনকে ধরে দূরে টেনে নিয়ে যান। তিনি দুই গ্ল্যাডিয়েটরকে তাদের এই প্রাণঘাতী খেলা ত্যাগ করার আহ্বান জানান। তিনি জনতার কাছে আবেদন করে বলছিলেন তারা যেন হত্যা করে ঈশ্বরের আইন ভঙ্গ না করে।

তাদের প্রতিক্রিয়া ছিল বিরূপ। জনতার ক্রুদ্ধ কণ্ঠস্বর টেলিমাকাসের কণ্ঠস্বরকে ভাসিয়ে দেয়, আর দাবি করে যেন সেই দৃশ্য অব্যাহত থাকে। কিন্তু গ্ল্যাডিয়েটররা যখন আবার যুদ্ধ করার জন্য প্রস্তুত নিয়েছিল তখন টেলিমাকাস তাদের দুজনকে দুদিকে ঠেলে ধরে মাঝখানে দাঁড়িয়ে এই মরণ যুদ্ধকে পুনর্বিবেচনা করার আহ্বান জানান। জনতার ক্রোধ এবং টেলিমাকাসের হস্তক্ষেপে ক্রুদ্ধ হয়ে গ্ল্যাডিয়েরটরা টেলিমাকাসকে কেটে মাটিতে ফেলে দেয়, আর জনতা তখন তার ‍দিকে বাক্য বোমা ছুড়ে মারছিল। টেলিমাকাস কে হত্যা করা হয়।

কিন্তু তার মৃত্যু বৃথা যায়নি। ৪০৫ খ্রিস্টাব্দে সম্রাট হোনোরিয়াস কলোসিয়ামে গ্ল্যাডিয়েটরদের যুদ্ধকে নিষিদ্ধ ঘোষণা করেছিলেন। কথায় আছে যে টেলিমাকাসের সাহসী প্রতিবাই তাকে এই পদক্ষেপ নিতে সহায়তা করেছিল।

 

Post a Comment

Previous Post Next Post